কেন জানি?

কেন জানি, কোন কিছুই ভালো লাগেনা আর,
মনযে চায় পেছন দিকে ফিরি বার বার!
পৃথিবীটা বড়ই আজব মনে হয়,
শুধু আমার মনটাই একলা হয়ে রয়!

চারদিকে এতকিছু, এত ভালোবাসা,
এত বন্ধুত্ব এত মানুষ, আছে কতো আশা!
তবুও বেঁচে রই এই একাকিত্বের মাঝে!
তবুও চেয়ে থাকি, ভবিস্যতের ভাঁজে!

লেখে যাই কবিতা, উদ্যেশ্যহীন ভাবে,
কতভুল, কত সঠিক, চেয়ে রই নিরবে!
আর চাই চিৎকার করেই অনেক কিছুই বলতে।
কিন্তু, চিৎকার করেই হয়না, ভেবে হয় চলতে!

শেষ নেই এই বলার, তবু শেষ করতেই হয়,
শুনতে নেই অনেক কিছু। তবু শুনেই চলতে হয়!
ভুলযে আর চাইনা করতে, সবই চাই ভুলতে।
তা-না হলে, রইবেনা কিছু, পৃথিবীতে বাঁচতে!